৫ দিন পরও নিখোঁজ প্রবাসীর স্ত্রীর কোনো সন্ধান মেলেনি

সাইদুর রহমান মিন্টু
বিজ্ঞাপন

নোয়াখালীর মাইজদী সোনাপুর থেকে নিখোঁজ হওয়ার ৫ দিন পরও প্রবাসীর স্ত্রীর কোনো সন্ধান মেলেনি। ফলে পরিবারে চলছে চরম উৎকণ্ঠা।

নিখোঁজ জান্নাতুল ফেরদাউস নাছরিন (২২) হাতিয়া উপজেলার বুড়িরচর ইউনিয়নের আজিজিয়া গ্রামের আবদুর রহমানের মেয়ে। এ ঘটনায় নিখোঁজ হওয়া মেয়েটির বাবা সুধারাম থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেছেন।

নিখোঁজ মেয়েটির বাবা আবদুর রহমান জানান, দুই বছর আগে হাতিয়ার চরকিং ইউনিয়নের আফাজিয়া গ্রামের আবুল কাশেমের সৌদি প্রবাসী ছেলে তামজিদ হোসাইনের সাথে নাছরিনের বিয়ে হয়। ১৫ দিন যাবৎ থেকে নাছরিন পেটের ব্যথায় ভুগছিলেন।
বৃহস্পতিবার চিকিৎসার উদ্দেশ্যে নাছরিনকে সাথে নিয়ে চট্রগ্রাম রওনা দেন তিনি। দুপুর ১টার দিকে সোনাপুর জিরো পয়েন্ট আসলে নাছরিনের বমি বমি ভাব দেখা দেয়।

এসময় তিনি নাছরিনকে একুশে কাউন্টারে রেখে ট্যাবলেট আনতে যান। ৫-১০ মিনিট পর ফিরে এসে দেখেন তার মেয়ে সেখানে নেই। এরপর সম্ভাব্য সব স্থানে খোঁজ নিয়ে মেয়ের কোনো খোঁজ পাননি।

সুধারাম মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নবীর হোসেন জানান, অভিযোগের পর থেকে পুলিশ তার সন্ধান চালিয়ে যাচ্ছে।

googel
বিজ্ঞাপন