প্রেমে অসম্মতি: ভাইয়ের কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে কিশোরীকে হত্যা

অভিযুক্ত তরুণ মিজানুর

প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় সাভারে ভাইয়ের কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে ১৪ বছর বয়সী এক স্কুলছাত্রীকে খুন করেছে এক বখাটে। হত্যাকাণ্ডের শিকার কিশোরীর নাম নীলা রায়। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত যুবক মিজানুর রহমান পলাতক রয়েছে। রবিবার দিবাগত রাত সাড়ে নয়টার দিকে সাভার মডেল থানাধীন পালপাড়া মহল্লার গার্লস স্কুল রোডে এই ঘটনা ঘটে। নীলার বাড়ি মানিকগঞ্জ জেলার বালিরটেক এলাকায়। তার বাবার নাম নারায়ণ রায়। বাবা-মার সঙ্গে সাভার পৌর এলাকার কাজী মোকমাপাড়ায় একটি বাড়িতে ভাড়া থেকে অ্যাসেড স্কুল নামে একটি বিদ্যালয়ে দশম শ্রেণিতে লেখাপড়া করত। অভিযুক্ত যুবক মিজানুর রহমান চৌধুরী একই এলাকার বাসিন্দা।

নীলার স্বজনরা জানান, দীর্ঘদিন ধরে নীলাকে বিভিন্ন সময় প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল মিজানুর। কিন্তু প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করার পরও ওই যুবক নীলাকে উত্ত্যক্ত করত। সবশেষ রবিবার রাতে শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যায় নীলাকে হাসপাতালে অক্সিজেন দিতে নিয়ে যায় তার ভাই অলক। পরে হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফেরার পথে পালপাড়া এলাকায় তাদের গতিরোধ করে বখাটে মিজানুর। নানা ভয়ভীতি দেখানোর এক পর্যায়ে অলকের কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে নীলার বিভিন্ন স্থানে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায় মিজানুর। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। সাভার মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সাইফুল ইসলাম ছুরিকাঘাতে স্কুলশিক্ষার্থীর মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করলেও বিস্তারিত জানাতে পারেননি।