টিকটক অপুর তিন দিনের রিমান্ড আবেদন

DSLR Cameras/ https://amzn.to/2P4hlHWCanon EOS Rebel T7 DSLR Camera with 18-55mm Lens | Built-in Wi-Fi|24.1 MP CMOS Sensor | |DIGIC 4+ Image Processor and Full HD Videos$359.99এই ক্যামেরা টি কিন্তে এখানে কিল্ক করুন

সড়কে মারামারি ও ছিনতাইয়ের ঘটনায় দায়ের হওয়া মামলায় টিকটক অপুর তিন দিন রিমান্ড চেয়ে আবেদন করেছে পুলিশ।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে অপুকে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করে এ আবেদন করা হয় বলে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা উপপরিদর্শক (এসআই) আজিজ তালুকদার এনটিভি অনলাইনকে জানিয়েছেন।

এ ছাড়া আদালতের সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা (জিআরও) মোহাম্মদ জালাল বলেন, কিছুক্ষণের মধ্যেই গ্রেপ্তার অপুর রিমান্ড শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

এর আগে গতকাল সোমবার রাত সোয়া ১০টার দিকে টিকটক অপু ও তাঁর সহযোগী নাজমুলকে গ্রেপ্তার করা হয়। গতকাল সোমবার দিবাগত রাত ১টার দিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আজিজ তালুকদার।

আজিজ তালুকদার বলেন, গত রোববার উত্তরার ৬ নম্বর সেক্টরের আলাওল এভিনিউর রাস্তা দখল করে টিকটক অপু ও তাঁর বেশ কয়েকজন সহযোগী আড্ডা দিচ্ছিলেন। সে সময় মেহেদী হাসান নামের এক ব্যক্তি ও তাঁর বন্ধুরা গাড়ি নিয়ে ওই সড়ক ধরে যাচ্ছিলেন। সে সময় মেহেদী রাস্তা ছাড়তে হর্ন দেন। কেন হর্ন দেওয়া হলো, তা নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে বাকবিতণ্ডার ঘটনা ঘটে।

আজিজ তালুকদার আরো বলেন, পরে অপু ও তাঁর সহযোগীরা মিলে মেহেদী হাসান ও তাঁর বন্ধুদের মারধর করেন। মারধরের ঘটনার সময় মেহেদী হাসানদের মুঠোফোনও ছিনতাই করা হয় বলে মামলার এজাহারে উল্লেখ আছে। ঘটনার পরদিন, অর্থাৎ সোমবার দুপুরে ভুক্তভোগীর বাবা এস এম মাহবুব আলম বাদী হয়ে মারামারি ও ছিনতাইয়ের অভিযোগ এনে উত্তরা পূর্ব থানায় আটজনের নাম উল্লেখসহ আরো ৩০ জনের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় অপু ও তাঁর এক সহযোগী নাজমুলকে উত্তরা ৬ নম্বর সেক্টরের আলাউল এভিনিউর ১২ নম্বর বাড়ির পাশের সড়ক থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

আজিজ তালুকদার বলেন, অপুর গ্রামের বাড়ি নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী। আর অপুর বাড়ি দক্ষিণখান এলাকায়।